গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় অনুমোদিত

করোনায় একদিনে রেকর্ড ১১২ জনের মৃত্যু

ঢাকা: গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ১১২ জনের মৃত্যু হয়েছে।  যা একদিনে দেশে করোনায় মৃত্যুর নতুন রেকর্ড।

এ নিয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে ১০ হাজার ৪৯৭ জনের। নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৪ হাজার ২৭১ জন। সব মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ লাখ ২৩ হাজার ২২১ জনে।

সোমবার (১৯ এপ্রিল) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ঢাকা সিটিসহ দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ও বাড়িতে উপসর্গ বিহীন রোগীসহ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৬ হাজার ৩৬৪ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ৬ লাখ ২৩ হাজার ৩০০ জন। সারাদেশে সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ২৬০টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা হয়েছে। এর মধ্যে আরটি-পিসিআর ল্যাব ১২২টি, জিন এক্সপার্ট ৩৪টি, র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন ১০৪টি। এসব ল্যাবে ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ২৪ হাজার ২১২টি। মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ২৪ হাজার ১৫২টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৫১ লাখ ৯৪ হাজার ২১৯টি।

এতে আরও জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষায় শনাক্তের হার ১৭ দশমিক ৬৮ শতাংশ। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৯২ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৫ দশমিক ৯১ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার এক দশমিক ৪৫ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়, ২৪ ঘণ্টায় মৃত ১১২ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ৭১ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ১৯ জন, খুলনা বিভাগে ১০ জন, রাজশাহী বিভাগে ৫ জন, সিলেট বিভাগে ৩ জন, রংপুর বিভাগে ২ জন। এছাড়া বরিশাল ও ময়মনসিংহ বিভাগে ১ জন করে ২ জন রয়েছেন। এদের মধ্যে হাসপাতালেই মারা গেছেন ১০৮ জন, বাড়িতে ৩ জন আর মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে একজনকে।

মৃতদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৬০ বছরে ঊর্ধ্বে ৬৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ২৬ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ১২ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ১০ জন রয়েছেন।

এতে আরও জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে এসেছেন ৮০০ জন ও আইসোলেশন থেকে ছাড় পেয়েছেন ৪৭৯ জন। এ পর্যন্ত আইসোলেশনে এসেছেন এক লাখ ১৬ হাজার ৩৮২ জন। আইসোলেশন থেকে ছাড়পত্র নিয়েছেন ৯৮ হাজার ১০৩ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১৮ হাজার ২৭৮ জন।

এর আগে গত ১৬ ও ১৭ এপ্রিল করোনায় ১০১ জন করে মারা যান। আর ১৮ এপ্রিল করোনায় মারা যান ১০২ জন। গত ৭ এপ্রিল দেশে একদিনে করোনা শনাক্ত হয় সাত হাজার ৬২৬ জন। যা দেশে  একদিনে করোনা শনাক্তে সর্বোচ্চ রেকর্ড। আর গত ৬ এপ্রিল একদিনে করোনা শনাক্ত হয়েছিল সাত হাজার ২১৩ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য মতে, ২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে করোনা ভাইরাসের প্রথম রোগী শনাক্ত হয়। এর ১০ দিন পর ১৮ মার্চ করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়। এরপর ধীরে ধীরে আক্রান্তের হার বাড়তে থাকে।

 

Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ

তথ্য প্রতিমন্ত্রীকে পদত্যাগের নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রীর পদ থেকে ডা. মুরাদ হাসানকে পদত্যাগের নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আগামীকালের মধ্যে তাকে এই পদত্যাগপত্র জমা দিতে হবে। প্রধানমন্ত্রীর...

‘পরীক্ষা না থাকলেও পঞ্চম-অষ্টমে বৃত্তি ও সনদ থাকবে’

শিক্ষাক্রমের পরিবর্তনের কারণে পঞ্চম ও অষ্টম শ্রেণির সমাপনী পরীক্ষা না থাকলেও বৃত্তি ও সনদের...

শেরপুর কৃষি প্রশিক্ষণ ইনষ্টিটিউটের শিক্ষার্থীদের পুনর্মিলনীর প্রস্তুতিমূলক সভা

শেরপুর: শেরপুর কৃষি প্রশিক্ষণ ইনষ্টিটিউটের ১ম, ২য় ও ৩য় ব্যাচের শিক্ষার্থীদের পুনর্মিলনী করার লক্ষ্যে প্রস্তুতিমূলক...

বৃষ্টি উপেক্ষা করেও সারাদেশে হাফ পাশ ও নিরাপদ সড়কের দাবিতে লক্ষ্মীপুরে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন ও বিক্ষোভ

জুনাইদ আল হাবিব: শুধু ঢাকা-চট্টগ্রাম নয়, সারাদেশে যাত্রীবাহী বাসে শিক্ষার্থীদের হাফ পাশ নিশ্চিতের দাবিতে...

গাজীপুর জেলা রিপোর্টার্স ক্লাবের নির্বাচিত কমিটির শপথ গ্রহণ

গাজীপুর: গাজীপুর জেলা রিপোর্টার্স ক্লাবে ২০২১-২২ কার্যমেয়াদের নব-নির্বাচিত কার্যনির্বাহী কমিটির শপথ গ্রহণ, আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত...

বিদ্যুৎস্পৃষ্ট শিশু তামিমকে ৫ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়ার আদেশ

লক্ষ্মীপুরের রামগতিতে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটিতে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে গুরুতর আহত পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র তামিম ইকবালকে...